২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২০  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সন্তুষ্টি যে অন্ততপক্ষে বিচার শেষ হয়েছে ॥ আইনমন্ত্রী

সন্তুষ্টি যে অন্ততপক্ষে বিচার শেষ হয়েছে ॥ আইনমন্ত্রী

অনলাইন রিপোর্টার ॥ তিন দশক আগে চট্টগ্রামে শেখ হাসিনার ওপর হামলা ও দুই দশক আগে সিপিবির সমাবেশে হামলার রায়ের বিষয়ে সন্তোষ প্রকাশ করে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, সন্তুষ্টি যে অন্ততপক্ষে বিচারটি শেষ হয়েছে।

মঙ্গলবার সচিবালয়ে পাবনা আইনজীবী সমিতিকে বই কিনতে ৩০ লাখ টাকার চেক হস্তান্তর অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ কথা বলেন।

ওই দুটি চাঞ্চল্যকর মামলার রায়ের একদিন পর প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে আইনমন্ত্রী বলেন, দুটি রায়ের সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য দিক হচ্ছে- চট্টগ্রামের ঘৃণিত অপরাধটা ১৯৮৮ সালে হয়েছে, ৩১ বছর পর এই বিচার সমাপ্ত হল। সিপিবির বোমা হামলা ২০০১ সালে হয়েছে। এর মানে ১৮ বছর পর আমরা এর বিচার শেষ করতে পেরেছি।

‘সন্তুষ্টি যে অন্ততপক্ষে বিচারটি শেষ হয়েছে,’ বলেন তিনি।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, আমরা এইটুকু বলতে পারি যে, এই দুটো বিচারের মাধ্যমে আবারও প্রমাণিত হলো অপরাধীরা কেউ আইনের ঊর্ধ্বে নয়, যার যতই ক্ষমতা থাকুক না কেন? হয়তো সাময়িকভাবে ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে কিছুদিনের জন্য আইনের ঊর্ধ্বে আছেন বলে একটা ইল্যুশনের মধ্যে থাকতে পারেন অপরাধীরা। শেষ পর্যন্ত তাদের আইনের আওতায় আসতেই হবে।

দুটি মামলার বিচার হতে দীর্ঘ সময় ক্ষেপণের বিষয়ে তিনি বলেন, এই মামলাগুলো যাতে বিচারের মুখ না দেখে সেই ব্যবস্থা করেছিল বিএনপি সরকার। শেখ হাসিনা ২০০৯ সালে সরকার গঠন করলেন তখন থেকে আবার তদন্ত শুরু হয়। তখন কতগুলো মামলা পুলিশের হাতে ছিল, সবগুলো তদন্ত করে শেষ পর্যন্ত পৌঁছেছে, সেজন্য আমি তাদের সাধুবাদ জানাই। তখন আবার নতুন করে সাক্ষী-সাবুদ দেওয়ার ব্যবস্থা ও তদন্ত করে এইসব মামলা চালানো, সেজন্য একটু দেরি হয়েছে।

‘বাংলাদেশে এখন বিচারহীনতার সংস্কৃতি গত। কেউ-ই আইনের ঊর্ধ্বে নয়, আইনের মাধ্যমে সব অপরাধের বিচার হবে।’

দেশে সবার জন্য সমান আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, হ্যাঁ, সবার জন্যই আছে। সবচেয়ে বড় কথা হচ্ছে, আপনাদের এটাও মানতে হবে। বিচারহীনতার সংস্কৃতি যথেষ্ট বছর ছিল। সেটার মূলোৎপাটন এত তাড়াতাড়ি করা যায় না।

‘আমরা দৃঢ়তার সঙ্গে বলতে পারি, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠিত হয়েছে শেখ হাসিনার সরকারের মাধ্যমে।’

তেজগাঁও রেজিস্ট্রি অফিসে বারবার দুর্ঘটনার বিষয়ে আইনমন্ত্রী বলেন, সেজন্য ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে, এ রকমভাবে যাতে আর না ঘটে। এই ঘটনা কেন ঘটছে বারবার, এটার মূলটা বের বরার জন্য আমরা তদন্ত করছি।

নির্বাচিত সংবাদ
এই মাত্রা পাওয়া