২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আওয়ামী লীগ দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী গোপাল চন্দ্র বর্মনের মতবিনিময়

আওয়ামী লীগ দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী গোপাল চন্দ্র বর্মনের মতবিনিময়

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাইবান্ধা ॥ গাইবান্ধা-৩ (পলাশবাড়ি-সাদুল্যাপুর) আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী গোপাল চন্দ্র বর্মন আজ রবিবার গাইবান্ধা প্রেসক্লাবে জেলার প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন।

মতবিনিময়কালে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন বাস্তবায়নে এবং দেশের অব্যাহত উন্নয়ন, দারিদ্র, দুর্নীতি ও মাদক মুক্ত দেশ গঠনে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের দলীয় প্রধান দেশের সফল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতকে শক্তিশালী করতে গাইবান্ধা-৩ (পলাশবাড়ি-সাদুল্যাপুর) আসনে অনুষ্ঠিতব্য উপ-নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী হিসেবে নির্বাচন করতে ইচ্ছুক। তিনি অবহেলিত পলাশবাড়ি-সাদুল্যাপুর উপজেলার সার্বিক উন্নয়ন এবং জনকল্যাণে নিবেদিত থেকে কাজ করার লক্ষ্য নিয়েই নির্বাচনে অংশ গ্রহণ করতে চান।

উল্লেখ্য, বিশিষ্ট শিল্পপতি এবং সমাজসেবক গোপাল চন্দ্র বর্মন পলাশবাড়ি উপজেলার ভেলাকোপা গ্রামের হৃদয় কুমার বর্মনের সন্তান। তার পিতা হৃদয় কুমার বর্মন ৭১’র মুক্তিযুদ্ধকালিন সময়ে গ্রামে থেকে মুক্তিযোদ্ধাদের বাড়িতে রেখে মুক্তিযুদ্ধে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেন। সেসময় তিনি আওয়ামীলীগ বাংলাদেশ সরকারের রিলিফ কমিটি এবং কৃষক বিগ্রেডের সদস্য ছিলেন। এছাড়া তার ভাই সন্তোস কুমার বর্মন বর্তমানে সাঘাটা উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ও সাঘাটা হিন্দু পূজা উদযাপন কমিটির ভাইস প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

গোপাল চন্দ্র বর্মন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অর্থনীতিতে এমএসএস ডিগ্রী লাভ করেন। এছাড়া ডিপ্লোমা ইন কম্পিউটার সাইয়েন্স ডিগ্রী লাভ করেন। পেশাগত ক্ষেত্রে তিনি উইন্টার কালেকশন লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা ও নোভা পলিমার লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং কালিয়াকৈর গাজীপুরের মেসার্স প্রতিভা এগ্রোর মালিক হিসেবে রপ্তানী পোষাক শিল্পে সফলভাবে ব্যবসা-বাণিজ্য করছেন। তিনি গাইবান্ধা সরকারি কলেজে ছাত্র অবস্থায় বাংলাদেশ ছাত্রলীগের কর্মী হিসেবে রাজনীতি শুরু করেন। পরবর্তীতে ১৯৯০ সালে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে ছাত্রলীগে সক্রিয়ভাবে জড়িত ছিলেন এবং ঢাকা ও গাইবান্ধা জেলার আওয়ামী লীগ দলীয় বিভিন্ন রাজনৈতিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত রয়েছেন।