২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

করোনা ভাইরাসে চিন্তার ভাঁজ রোমান সানার কপালে !

করোনা ভাইরাসে চিন্তার ভাঁজ রোমান সানার কপালে !

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ করোনা ভাইরাসের প্রকোপে থমকে আছে চীনের ক্রীড়াঙ্গণ। এমনকি টোকিও অলিম্পিকে চীনা এ্যাথলেটদের অংশগ্রহণ নিয়েও আছে প্রশ্ন। তাই যদি হয়, তবে পিছিয়ে যেতে পারে এবারের টোকিও অলিম্পিক।

শঙ্কিত বাংলাদেশ থেকে সরাসরি জাপান অলিম্পিকের টিকেট নিশ্চিত করা রোমান সানাও। আর বিওএ বলছে অবস্থা পর্যবেক্ষণ শেষে আর্চারির বিশ্বকাপ ও অলিম্পিকে দল পাঠানোর ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন তারা।

নিশ্চিতরূপেই এ মুহূর্তে পৃথিবীর সবচেয়ে বড় ভীতির নাম করোনা ভাইরাস। চীনের হুবেই প্রদেশ ছাপিয়ে যার বিষাক্ত ছোবলে আতঙ্কগ্রস্ত তাবৎ দুনিয়া। বাদ যায়নি ক্রীড়াঙ্গণও।

করোনা ভাইরাসের প্রকোপে চীনে একেরপর এক স্থগিত হচ্ছে বিভিন্ন ক্রীড়ার ইভেন্ট। ৪-১০ মে সাংহাইতে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা আরচার বিশ্বকাপের স্টেজ টু। নারী ও পুরুষদের, রিকার্ভ ও কম্পাউন্ড ইভেন্টে যেখানে বাংলাদেশ থেকে অংশ নেয়ার কথা ১৪ আরচারের। কিন্তু শঙ্কার মুখে সে টুর্নামেন্টও।

জাপানে অনুষ্ঠেয় টোকিও অলিম্পিক নির্ধারিত সময়ে মাঠে গড়ানো নিয়েও আছে প্রশ্ন। তাইতো স্বাভাবিকভাবেই করোনা ভাইসারের ভীতি জেঁকে বসেছে বাংলার আরচারদের মনেও।

এ প্রসঙ্গে টোকিও অলিম্পিকে অংশগ্রহণকারী আরচার রোমান সানা বলেন, ‘প্রতিদিনই আপডেট নিচ্ছি। খারাপ লাগছে যে এটাকে থামানো যাচ্ছে না। যদি অলিম্পিক পিছিয়ে যায়, তাহলে অন্যরকম লাগবে।’

বাংলাদেশ আরচারির কোচ ফ্রেডরিখ মার্টিন বলেন, ‘এ মুহূর্তে চীনের কেমন পরিস্থিতি তা আমরা সবাই জানি। বিষয়টি নিয়ে সত্যিই উদ্বিগ্ন। আমার বিশ্বাস চীনে অনুষ্ঠেয় আরচারির বিশ্বকাপ স্থগিত হবে। তবে সে যাই হোক না কেন, বিশ্বকাপ ও অলিম্পিকের জন্যই আমরা প্রস্তুত হচ্ছি।’

এ ব্যাপারে সজাগ দৃষ্টি রেখে সব রকমের যোগাযোগ রাখছে বাংলাদেশ অলিম্পিক এ্যাসোসিয়েশন। তারা বলছেন, পরিস্থিতি উন্নতি না হলে দল পাঠানো হবে না। তবে আগামী মাসে থাইল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় এশিয়ান কাপ আরচারি। ওই আসরে বাংলাদেশ দল অংশগ্রহণ করবে কিনা, সেই সিদ্ধান্ত আরচারি ফেডারেশনের ওপরই ছেড়ে দিয়েছে বিওএ।